সর্বশেষ সংবাদ

বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশের জলসীমায় অবৈধভাবে অনুপ্রবেশের অভিযোগে মায়ানমারের ১০ নাগরিকসহ একটি বোট আটক করেছে নৌবাহিনী

ঢাকা, ২৩ মার্চ ২০১৭ঃ-   বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশের জলসীমায় অবৈধভাবে অনুপ্রবেশের কারণে ১টি বোটসহ মায়ানমারের ১০ নাগরিককে আটক করেছে বাংলাদেশ নৌবাহিনী। সেন্টমার্টি›স দ্বীপের এক মাইল দূরবর্তী এলাকা হতে নৌবাহিনী যুদ্ধজাহাজ আবু বকর তাদেরকে আটক করে। এসময় উক্ত বোট থেকে কিরিচ, চাপাতিসহ বিভিন্ন ধরনের দেশীয় ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। জব্দকৃত বোটটির আনুমানিক মূল্য ১ কোটি ৫ লাখ টাকা। আটককৃত মায়ানমার নাগরিক, জব্দকৃত অস্ত্র ও মালামালসমূহ আজ বৃহস্পতিবার (২৩-০৩-২০১৭) প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।
নৌবাহিনী যুদ্ধজাহাজ আবুবকর গত ২২ মার্চ ২০১৭ তারিখ রাতে বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশী জলসীমায় নিয়মিত টহল প্রদানকালে সেন্টমার্টিন্স এর দক্ষিণ-পশ্চিমে একটি বোটের গতিবিধি সন্দেহজনক হলে নৌবাহিনীর সদস্যরা বোটটিকে চ্যালেঞ্জ করে। এসময় ‘পোপো খাই’ নামক মায়ানমারের বোটটিতে থাকা নাগরিকরা নৌসদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে পালানোর চেষ্টা করে। পরবর্তীতে নৌবাহিনীর সদস্যরা বোটটিকে জব্দ করে সেখান থেকে ১০ জন মায়ানমার নাগরিককে আটক করে। এসময় জিজ্ঞাসাবাদে তাদের দেয়া তথ্যাদির মধ্যে অসঙ্গতি পরিলক্ষিত হয়। তারা নিজেদেরকে গরু বিক্রেতা হিসেবে পরিচয় দিলেও বোটে তল্লাশী চালিয়ে কোন গরু অথবা গরু বিক্রয়লদ্ধ অর্থ পাওয়া যায়নি। এছাড়া, বোটটিতে পাওয়া ধারালো অস্ত্র রাখার বিষয়ে তারা বিভিন্ন ধরনের বিভ্রান্তিমূলক তথ্য প্রদান করে। আটককৃতরা হলো মতি মি (৩৩), তশম (৩৬), ডেবলা (৩৪), বাসুবে (৪০), ছছ (৩৭), তাম ঈ (৩২), চশুশি (৩০), সুছেফু (৩৮), মং চোয়া (৩৫) এবং ওঠকিওকে (৩৩)।