সর্বশেষ সংবাদ

ভূমিকম্প পরবর্তী দুর্যোগ ব্যবস্থাপনার উপর যৌথ অনুশীলন শুরু

ঢাকা, ০৮ অক্টোবর : দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ এবং যুক্তরাষ্ট্র সেনাবাহিনীর যৌথ উদ্যোগে Disaster Response Exercise and Exchange (DREE) -২০১৭ শীর্ষক বহুজাতিক দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অনুশীলন আজ রবিবার (০৮-১০-২০১৭) ঢাকা সেনানিবাসস্থ আর্মি গল্ফ ক্লাবে শুরু হয়েছে। এই অনুশীলন ০৫ দিন ব্যাপী, ০৮ হতে ১২ অক্টোবর ২০১৭ তারিখ পর্যন্ত একযোগে ঢাকা ও ময়মনসিংহে অনুষ্ঠিত হচ্ছে ।

এই অনুশীলনের মূলপ্রতিপাদ্য বিষয় ভূমিকম্প দূর্যোগ মোকাবেলায় সকল সংস্থার কার্যক্রম অনুশীলন ও যথার্থত যাচাই । অনুশীলনের উদ্দেশ্য ভূমিকম্প পরবর্তী দুর্যোগ ব্যবস্থাপনায় নিজস্ব সক্ষমতা পরীক্ষা ও বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা অর্জন, ভূমিকম্প মোকাবেলায় আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত পদ্ধতিসমূহ দেশীয় ব্যব¯হাপনায় একীভূতকরণের লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় জ্ঞান আহরণ, বিভাগীয় ও মাঠপর্যায়ে অনুরূপ অনুশীলন এবং বাস্তবায়নের লক্ষ্যে দূর্যোগ ব্যব¯হাপনার সাথে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিবর্গকে প্রশিক্ষিত করা।

এ বছর উক্ত অনুশীলনে দূর্যোগ ব্যবস্থাপনার সাথে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দেশী ও বিদেশী সংস্থাসমূহের মধ্যে সমন্বয়, বিদেশী সহায়তা গ্রহণ, যোগাযোগ, তথ্য ব্যবস্থাপনা, বিভিন্ন আবশ্যকীয় পরিকল্পনা প্রনয়ন, অগ্নিনির্বাপনী মহড়া, উদ্ধার, চিকিৎসা, মানবসম্পদ ব্যব¯হাপনা ইত্যাদি পরিচালনা ও অনুশীলন করা হবে। এ লক্ষ্যে বিভিন্ন বিষয়ে দেশী ও বিদেশী বিশেষজ্ঞ ব্যক্তিবর্গ উপস্থাপনা প্রদান করবেন এবং পরবর্তীতে বিভিন্ন দলে বিভক্ত হয়ে পরিকল্পনা প্রনয়ন ও বিভিন্ন সমন্বয় কেন্দ্র স্থাপনের মাধ্যমে প্রকৃত দুর্যোগ মোকাবেলা সম্পর্কিত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়াদি অনুশীলন করা হবে। অনুশীলনে বিভিন্ন সরকারি, বেসরকারি ও জাতিসংঘ অফিসসমূহ এবং বিদেশীসহ প্রায় ১৩০টি সংস্থা হতে আনুমানিক ১০০০ জন অংশগ্রহনকারী ঢাকা ও ময়মনসিংহ শহরে অংশ নিবেন। এছাড়া কানাডা, চীন, ভারত, মালয়েশিয়া, মালদ্বীপ, নেপাল, ফিলিপাইন, সিঙ্গাপুর, শ্রীলংকা, যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র থেকে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক প্রতিনিধি অংশগ্রহন করবে। এ অনুশীলনে সকলস্তরের দেশী ও বিদেশী সংস্থাসমূহের স্বতস্ফুর্ত অংশগ্রহণ বাংলাদেশে ভূমিকম্প পরবর্তী দূর্যোগ মোকাবেলা প্রস্তুতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের মাননীয় সচিব, জনাব মোঃ শাহ্ কালাম আজ এই অনুশীলনের উদ্বোধন করেছেন। এ ধরনের অনুশীলন বাংলাদেশের ভূমিকম্প দূর্যোগ ব্যবস্থাপনাকে আরও সুসংহত করবে এবং পাশাপাশি আঞ্চলিক দূর্যোগ মোকাবেলায় সহায়ক ভূমিকা রাখতে সক্ষম হবে ।