রবিবার, ২১শে জুলাই ২০১৯ ইং; ৬ই শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ; ১৭ই জিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী
Home বিমান বাহিনী বিমান বাহিনী প্রধান কর্তৃক বিমান বাহিনীর বিভিন্ন স্কোয়াড্রন ও ইউনিট কে বিমান বাহিনী পতাকা প্রদান।
R-07----
R-06-----
R-05--------
R-04---------
R-03--------
R-02-----
R-01-----

বিমান বাহিনী প্রধান কর্তৃক বিমান বাহিনীর বিভিন্ন স্কোয়াড্রন ও ইউনিট কে বিমান বাহিনী পতাকা প্রদান।

1.50K
0

ঢাকা, ০৭ জুলাই ঃ- বাংলাদেশ বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাত, বিবিপি, ওএসপি, এনডিইউ, পিএসসি রবিবার (০৭-০৭-২০১৯) বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর ৯ নং স্কোয়াড্রন, ফাইটার কন্ট্রোল ট্রেনিং ইউনিট (এফসিটিইউ), ১ ফিল্ড ইউনিট, ২০৮ রক্ষণাবেক্ষণ ইউনিট, কমান্ড ও স্টাফ ট্রেনিং ইনস্টিটিউট (সিএসটিআই), আকাশ প্রতিরক্ষা পরিচালন কেন্দ্র, যোগাযোগ ইউনিট ও বিমান বাহিনী রেকর্র্ড অফিস কে বিমান বাহিনী পতাকা প্রদান করেন।

ফোর্সেস গোল-২০৩০ বাস্তবায়নে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর এইসব ইউনিট ও স্কোয়াড্রন সমূহ কে বিমান বাহিনী পতাকা প্রদান করা হয়।

বিমান বাহিনী ঘাঁটি বাশার এর প্যারেড গ্রাউন্ডে এসে পৌঁছলে বিমান বাহিনী প্রধানকে স্বাগত জানান উক্ত ঘাঁটির এয়ার অধিনায়ক, এয়ার ভাইস মার্শাল মোঃ শফিকুল আলম, ওএসপি, বিএসপি, এনডিসি, এফএডব্লিউসি, পিএসসি। পতাকা প্রদানকালে বিমান বাহিনী প্রধান ঘাঁটি বাশার এর প্যারেড গ্রাউন্ডে অনুষ্ঠিত কুচকাওয়াজ প্রত্যক্ষ করেন। কুচকাওয়াজে নেতৃত্ব দেন গ্রুপ ক্যাপ্টেন মোহাঃ মাহফুজুর রহমান, জিইউপি, পিএসসি, জিডি(পি)।

পতাকা হস্তান্তরের পর বিমান বাহিনী প্রধান বিমান বাহিনীর সকল স্তরের সদস্যদের উদ্দেশ্যে সংক্ষিপ্ত ভাষণে বলেন, মহান স্বাধীনতাযুদ্ধে বিমান বাহিনী সদস্যদের সাহসিকতাপূর্ণ অবদান জাতি চিরদিন শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে। ভাষণে তিনি বিমান বাহিনীর সকল সদস্যদের পেশাগত দক্ষতা ও উৎকর্ষতা অর্জনের উপর তাগিদ দেন। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন যে, বাংলাদেশ বিমান বাহিনী দেশের আকাশ সীমার নিরাপত্তা ও সুরক্ষা ছাড়াও ভবিষ্যতে ঝঢ়ধপব ধহফ ইবুড়হফ এ কার্যক্রম পরিচালনা করবে। এছাড়াও, দেশের এভিয়েশন শিল্প বিকাশে বাংলাদেশ বিমান বাহিনী অগ্রণী ভূমিকা পালন করবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

এছাড়াও, তিনি বিমান বাহিনী পতাকা অর্জনকারী বিভিন্ন ইউনিট ও স্কোয়াড্রন সমূহের প্রতিটি সদস্যকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং বিমান বাহিনীর সম্মানের প্রতীক হিসেবে প্রদানকৃত কালার এর মর্যাদা ও সম্মান অক্ষুন্ন রাখতে সকলকে সচেষ্ট থাকতে বলেন।

অনুষ্ঠানে বিমান বাহিনীর প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসারগণ, তিন বাহিনীর উর্দ্ধতন কর্মকর্তা এবং বিমান বাহিনীর অন্যান্য সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য যে, বাংলাদেশ বিমান বাহিনী জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অত্যন্ত সুনাম ও দক্ষতার সাথে বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করে চলেছে এবং বিমান বাহিনী ঘাঁটি ‘বাশার’ সর্বক্ষেত্রেই এই সব কার্যক্রমে নিয়মিত ও গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছে। এর স্বীকৃতিস্বরূপ বিমান বাহিনী ঘাঁটি ‘বাশার’ কে গত ২৭-০৯-২০১২ তারিখে ন্যাশনাল স্ট্যান্ডার্ড প্রদান করা হয়েছিল।

(1498)

Close